রোহিঙ্গা গ্রামবাসীরা সামরিক কারাদণ্ডে ধর্ষণ ও হত্যার কথা বলে

বিচ্ছিন্ন রোহিঙ্গা মুসলমানরা বলেছে যে মায়ানমারের সামরিক বাহিনীর সদস্যরা আগস্ট মাসে কাউন্টার-বিদ্রোহের ঘটনার সময় গ্রামবাসীকে ধর্ষণ ও হত্যা করেছে।
রশিদা বেগম জানান, রাখাইন রাজ্যে টুুলা টোলি গ্রামে সৈন্যরা যখন গলে যায় তখন গলা কেটে ফেলার চেষ্টা করে। তিনি বলেন, তার বাচ্চা তার কাছ থেকে ছিনতাই করে মাটিতে ফেলে দিয়ে হত্যা করে।
মোহাম্মদ সুলেইমান জানান, নিহতদের মধ্যে তাদের স্ত্রী ও তার তিন মেয়ে রয়েছে। তিনি বলেন, গ্রামের অধিকাংশ পুরুষ ও ছেলেমেয়ে মারা গেছে।