মন বনাম মগজ।

জীবনধারা।

মানব মন,এর কোন পারফেক্ট সংজ্ঞা বা উদাহরণ এমন কিছুই নাই।মন ত মন ই।তবে এটা বলা যায় মন আছে বলেই হইত আমরা বেচে আছি,তাই নয় কি।

এই মানব মন কতটা বিচিত্র।আমাদের প্রত্যেক দিনের কর্মকাণ্ড একটু খেয়াল করলেই হয়তো আমরা টের পাব।মনের উপর আমাদের পুরো জীবন যাত্রা নির্ভর করে।কোন কিছু করতে মন চাইলে তা করি, খেতে মন চাইলে তা করি,গান শুনতে মন চাইলে করি।অবশ্য মাঝেমাঝে ভেবে চিন্তাভাবনা করে কিছু কাজ করি,এই ভাবনা চিন্তার কাজ ও কিন্তু মনের ই।হ্যা এই মনের সাথে আমাদের মস্তিষ্ক এর একটি সুক্ষ্ম যোগাযোগ আছে,যা আমরা অস্বীকার করতে পারব না।

একেক জনের মন একেক রকম।মন তার একেক রকম চিন্তা ভাবনা।তার কাছে হয়তো তার মনের চিন্তাভাবনা স্বাভাবিক, কিন্তু অন্য কারী কাছে তা অস্বাভাবিক। আবার কারো কাছে তার কোন মূল্য ও নেই।মন,সে ত এক আজব কারখানা।

মনের ও আবার বিচিত্র রং আছে।কারো কাছে মনের রং সাদা,কারো কাছে লাল,কারো কাছে নীল,আবার কারো কাছে কালো।আমার কাছে মনের রং কি জানেন!! কালোর মাঝে সাদা সাদা ফোটা!!বিচিত্র না?!কি করব বলেন,এটাও ত মনের ই ভাবনা।

অনেকেই বলেন মনের কথা শুনতে হয়না,মনের কথা শুনলে মানুষ পরে পস্তায়।কিন্তু আমি তা মনে করিনা।আমার মতে,মন ই আপনাকে সঠিক রাস্তা দেয়,কিন্তু আপনি আপনার মনের ভুলে তা টের পান না।ওইটাও আপনার মনেরই দোষ।সমস্ত দোষ গুন সব ই আমাদের এই মনের।

সব সময় মস্তিষ্ক দিয়ে ভাবলে মানুষ রোবট হয়ে যাবে,তখন যন্ত্র আর মানুষে কোন পার্থক্য কি থাকবে বলুন? তাই মনের ভাবনার সাথে নিজের মস্তিষ্ক খাটান।দেখবেন নিজের জীবনের সবচে উত্তম সিদ্ধান্ত টি আপনি নিয়েছেন।

#বি.দ্র: উপরোক্ত সম্পূর্ন লেখা টি এক পাগল মনের উপস্থাপন। কেউ অতিরিক্ত গম্ভীর হয়ে যাবেন না কিন্তু।

বাংলাদেশ অনলাইন নিউজ এর নিজস্ব লেখা।

লেখিকাঃ নওশীন জাহান