ব্যাংকিং খাত নিয়ে সমালোচনার জবাব দেওয়া হবে-অর্থমন্ত্রী

ব্যাংকিং খাত সংস্কারের সিদ্ধান্ত আসন্ন. . .

অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত জানিয়েছেন জুলাই মাসে ব্যাংকিং খাত সংস্কারে সিদ্ধান্ত নেয়া হবে। অর্থ মন্ত্রী বলেন আমি মনে করি  মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রি শেখ হাসিনার হাত ধরে বাংলাদেশ একটা উন্নত দেশে তৈরি হতে যাচ্ছে। প্রতিটা সেক্টরে অস্বাভাবিক সাফল্য অর্জন করছে । ব্যাংকিং সেক্টর ও তার থেকে আলাদা নয়।  

জনাব মুহিত বলেন, ব্যাংক খাত নিয়ে সমালোচনার জবাব দেওয়া সময় মাত্র। এ বিষয়ে আমরা প্রস্তুতি নিচ্ছি। আসন্ন জুলাইয়ে এই বিষয়ে একটা সিদ্ধান্তে নেওয়া হবে।

মন্ত্রী বলেন, ব্যাংকের বিষয়ে সবচেয়ে বড় অভিযোগ হলো খেলাপি ঋণ বেড়ে যাওয়া। এ ব্যাপারে কিছু একটা করতে হবে। বর্তমানে ব্যাংকের লুটপাটের ব্যাপারে মন্ত্রী বলেন, লুটপাট মানে ব্যাংকের সম্পদ পরিচালকরা নিয়ে নিচ্ছেন। এমনটি হচ্ছে না। তবে আমি মনে করি এই ক্ষেত্রে একটা খারাপ দিক রয়েছে। সেটি হচ্ছে এক ব্যাংকের পরিচালক অন্য ব্যাংকের পরিচালকদের সাথে সমঝতার মধ্য দিয়ে ঋণ নিয়ে নিচ্ছেন।

‘দেখা গেছে এক ব্যাংকের পরিচালক হয়ে অন্য ব্যাংক থেকে কিছু কনফ্লিক্ট ইস্যু থাকা সত্ত্বেও তারা ঋণ নিয়ে নিচ্ছি। এসব বিষয়ে জুলাইয়ের মধ্যে কিছু একটা করা হবে। এ বিষয়ে আমারা মোটামুটি ঠিক করে ফেলেছি। তার আগে এ বিষয়ে স্টক হোল্ডারের সঙ্গে আলোচনা করতে হবে। তাই জুলাই পর্যন্ত সময় লাগবে আমাদের।

আজ মঙ্গলবার (২৬ জুন) সচিবালয়ে অর্থ মন্ত্রণালয়ের সভা কক্ষে গণমাধ্যম কর্মীদের সাথে আলাপকালে তিনি এ কথা জানান।

finance minister abul maal abdul muhith bangla news